তথ্য অধিদফতর (পিআইডি) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮

তথ্যবিবরণী ২৭ ডিসেম্বর ২০১৮

তথ্যবিবরণী                                                                                                নম্বর : ৩৪৪৩
 
মন্ত্রিপরিষদ সচিবের মাতার মৃত্যুতে তথ্য মন্ত্রণালয়ের 
মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও সচিবের শোক
 
ঢাকা, ১৩ পৌষ (২৭ ডিসেম্বর) :
 
মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের মা ও শহিদ জননী আলমাছ খাতুনের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন তথ্য মন্ত্রণালয়ের  মন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম এবং সচিব আবদুল মালেক।
 
তথ্য মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও সচিব তাঁদের  শোকবার্তায় আলমাছ খাতুনের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করেন ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান। উল্লেখ্য, আলমাছ খাতুন আজ রাত আটটায় কক্সবাজারে বার্ধক্যজনিত কারণে ইন্তেকাল করেন (ইন্নালিল্লাহে.........রাজেউন)। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৪ বছর। 
 
মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের ছোট ভাই  এ টি এম জাফর আলম ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ রাতের প্রথম প্রহরে পাক হানাদার বাহিনীর হাতে শহিদ হন।
 
#
 
আকরাম/মাহমুদ/পারভেজ/সেলিম/২০১৮/২২৩০ ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                       নম্বর : ৩৪৪২
 
মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের মাতার ইন্তেকাল
 
ঢাকা, ১৩ পৌষ (২৭ ডিসেম্বর) :
 
মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের মাতা আলমাস খাতুন আজ রাত আটটায় কক্সবাজারে ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহে.........রাজেউন)। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৪ বছর। 
 
#
 
আসাদ/মাহমুদ/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৮/২১১৫ ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                                নম্বর : ৩৪৪১
 
বাংলাদেশ রেলওয়ে
বিনা টিকেটের যাত্রীদের কাছ থেকে ৭৬ হাজার টাকা আদায়
 
ঢাকা, ১৩ পৌষ (২৭ ডিসেম্বর) :
 
আজ বাংলাদেশ রেলওয়ের পশ্চিমাঞ্চলের চিফ কমার্শিয়াল ম্যানেজার (সিসিএম) এ এন এম শাহনেওয়াজের নেতৃত্বে ঢাকা-রাজশাহী-ঢাকার মধ্যে চলাচলকারী সিল্কসিটি ট্রেন ও দিনাজপুর থেকে ছেড়ে আসা একতা ট্রেনে ভ্রমণকারী যাত্রীদের তল্লাশি কার্যক্রম পরিচালনা করেন। 
 
এ সময় ট্রেন দু’টিতে ৩৫৫ জন যাত্রীর বিরুদ্ধে বিনা টিকেটে ভ্রমণের অভিযোগ পাওয়া যায়। ফলে তাদের কাছ থেকে ভাড়া বাবদ ৫০ হাজার ৬শ’ টাকা এবং জরিমানা হিসেবে ২৫ হাজার ৪শ’ টাকা সহ মোট ৭৬ হাজার টাকা আদায় করা হয়।
 
এ তল্লাশি কার্যক্রমে পশ্চিমাঞ্চলের সহকারী ট্রাফিক সুপার (এটিএস) মোস্তাফিজুর রহমান সহযোগিতা করেন।
 
#
 
শরিফুল/মাহমুদ/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৮/২০৪৫ ঘণ্টা

Handout                                                                                                                   Number : 3440

 

11th National Parliament Election

Foreign observers and journalists ready for wide coverage

 

Dhaka, December 27 :

            The forthcoming 11th National Parliament Election scheduled on 30 December 2018 is going to be widely observed by the foreign observers and journalists. Nine international organisations and groups and a dozen of Foreign Missions in Bangladesh are set to watch the upcoming election with their 188 observers. EU, Commonwealth, OlC, Forum of Election Commission Management of South Asia (FEMBOSA), lnternational Republican lnstitute (lRl), lnternational Foundation for Electoral Systems (IFES), Democracy lnternational (Dl), Dipendra Kandel lnitiative (DKl) and SAARC Human Rights Foundation are the organisations. The Foreign Missions accredited to observe election include Embassies of USA, the UK, Greece, lreland, Japan, France, Germany, Canada, Switzerland, Denmark and more. The foreign observers are coming from a range of countries such as Australia, Bhutan, Canada, lndia, USA, Samoa, Malaysia, Maldives, Nigeria, Nepal, Palestine, Srilanka, the Philippines etc.

            Along with the foreign observers so far 56 foreign journalists and media personnel are also set to visit Bangladesh to cover the election a number of whom are already in Bangladesh. They will be representing different international media groups like BBC, Cable News International, lNC, Deutsche Welle, NHK, The Yomiuri Shimbun, AFP, AP, News Agency, Al-Jazeera, German TV, TV Today Network, New York Times, Le Monde, The Economist, Zee News, Kyodo News, Times of lndia, The Hindu, National Public Radio (USA), Strategic News, Frontline, The Week and more. The stringers of foreign media are also at work during the election times.

            Mention may be made that 118 local organizations with their more than 25,000 observers are observing the upcoming election.

            An lnternational Election Observers' Coordination Cell has been established under the Ministry of Foreign Affairs with representations from the relevant Ministries and Departments including the Ministries of Home Affairs and Information. Another unit of the Cell started operation in the Hotel Pan Pacific Sonargaon while a Help Desk already in operation at the Hazrat Shah Jalal lnternational Airport (HSIA) to welcome and assist the Foreign observers and media personnel. Constant liaison is being maintained between these units among the relevant Ministries and especially with the Bangladesh Election Commission (EC) for smooth coordination required for the foreign observers and media personnel.

            All Bangladesh Missions have been advised to assist them with visa facilities. Arrangements have also been put in place for according visa on arrival to those observers and journalists who would not be in a position to obtain visa from Bangladesh Missions abroad. The foreign observers and journalists are being issued accreditation and pass to enable them to watch polling on the election day. In addition to the accreditation, the EC is issuing stickers for vehicles to be used by the foreign observers and media people and those Foreign Missions in Bangladesh that have requested for registration to observe the election. Security support, when requested, will also be given to the foreign observers.

#

Monzur/Mahmud/Parvez/Salim/2018/1820 Hrsতথ্যবিবরণী                                                                                              নম্বর : ৩৪৩৯
 
২২১০ কোটি টাকার ই-জুডিশিয়ারি প্রকল্প গ্রহণ
 
ঢাকা, ১৩ পৌষ (২৭ ডিসেম্বর) : 
দক্ষ ও স্বচ্ছ বিচার প্রক্রিয়া পরিচালনার জন্য ডিজিটাল ব্যবস্থা প্রবর্তন করা,  বিচার ব্যবস্থার জন্য প্রশাসনিক এবং বিচার কার্যক্রম স্বয়ংক্রিয় করা,  ই-আদালত কক্ষ প্রতিষ্ঠা করা এবং  আইসিটি বিষয়ের জ্ঞান ও দক্ষতা দ্বারা বিচারক, সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ও আইনজীবীদের সক্ষমতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ২ হাজার ২১০ কোটি টাকার
ই-জুডিশিয়ারি প্রকল্প গ্রহণ করেছে আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়। সম্প্রতি পরিকল্পনা কমিশনে অনুষ্ঠিত প্রকল্প মূল্যায়ন কমিটির (পিইসি) সভায় এই প্রকল্প অনুমোদিত হয়েছে এবং তা এখন জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে।
প্রকল্পটির মূল কার্যক্রম হবে: বিচার ব্যবস্থার জন্য এন্টারপ্রাইজ আর্কিটেকচার উন্নয়ন; এন্টারপ্রাইজ রিসোর্স প্ল্যানিং (ইআরপি) সফটওয়্যার উন্নয়ন; বিচার ব্যবস্থাধীন সকল অফিসের জন্য ভার্চুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্ক (ভিপিএন) স্থাপন; আইন ও বিচার বিভাগের ডেটা-সেন্টার আপগ্রেডেশন এবং নেটওয়ার্ক অপারেশন সেন্টার স্থাপন; সুপ্রীম কোর্টের ডেটা-সেন্টার আপগ্রেডেশন এবং নেটওয়ার্ক অপারেশন সেন্টার স্থাপন; ৬৪ টি জেলায় মোট ১৪০০টি আদালত কক্ষকে ই-আদালত কক্ষে রূপান্তর; ঢাকা জেলা ব্যতীত ৬৩টি জেলায় ৬৩টি মাইক্রো ডাটা-সেন্টার স্থাপন, আইন ও বিচার বিভাগ এবং সুপ্রীম কোর্টের কেন্দ্রীয় ডেটা সেন্টারের সাথে আন্তঃসংযোগ স্থাপন; বিচারকদের জন্য ২০০০টি ট্যাব বা ল্যাপটপ কম্পিউটার সরবরাহ; রেকর্ডরুম স্বয়ংক্রিয়করণ এবং পুরাতন রেকর্ডরুমসমূহ ডিজিটাইজড করা; পূর্বের মামলার রেকর্ড এবং সংশ্লিষ্ট রায় ডিজিটাল পদ্ধতিতে সংরক্ষণ; ভিডিও কনফারেন্সিং সিস্টেমের মাধ্যমে সাক্ষ্য গ্রহণ এবং ডিজিটাল এভিডেন্স রেকর্ডিং; বায়োমেট্রিক এটেনডেন্স সিস্টেম স্থাপন; ই-কোর্ট রুম বাস্তবায়নের জন্য সংশ্লিষ্ট নতুন আইন প্রণয়ন ও প্রচলিত আইনসমূহের প্রয়োজনীয় সংশোধনের প্রস্তাব করা; বিচার ব্যবস্থার কর্মকর্তাদেরকে ডেস্কটপ কম্পিউটার সরবরাহ; বিচার ব্যবস্থার সাথে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীদেরকে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ প্রদান। এই প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য ১৭০ জন জনবল নিয়োগ করা হবে।
সরকার ইতিমধ্যে জনগণকে অল্প সময়ে, অল্প খরচে ও সহজে বিচারিক সেবা প্রদানের উদ্দেশ্যে সকল আদালত ও ট্রাইব্যুনালে ইন্টারনেট সংযোগসহ কম্পিউটার বা ল্যাপটপ সরবরাহ করেছে। সরকার বিচারিক প্রক্রিয়ায় কাক্সিক্ষত স্বচ্ছতা নিশ্চিত করার পাশাপাশি সাক্ষ্যগ্রহণের দীর্ঘসূত্রতা থেকে বিচারক ও বিচারপ্রার্থীদের নিষ্কৃতি প্রদানের লক্ষ্যে সিলেটে সাক্ষ্য গ্রহণের কম্পিউটারাইজড পদ্ধতি ব্যবহারের কাজ শুরু করেছে এবং বিচারপ্রার্থী জনগণের সুবিধার্থে বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টসহ ১৩টি জেলায় উরমরঃধষ উরংঢ়ষধু ইড়ধৎফ-এর মাধ্যমে আদালতের দৈনিক কার্যতালিকা  প্রদর্শনের কার্যক্রম গ্রহণ  করেছে। 
#
রেজাউল/মাহমুদ/সঞ্জীব/আব্বাস/২০১৮/১৮৪৩ ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩৪৩৮
 
শ্রমজীবীর সন্তানদের উচ্চ শিক্ষায় সহায়তা দেবে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন
 
ঢাকা, ১৩ পৌষ (২৭ ডিসেম্বর) :
 
শ্রমজীবী মানুষের সন্তানদের উচ্চ শিক্ষা নিশ্চিত করার জন্য সারাদেশ থেকে তাদেরকে খুঁজে বের করে বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিল থেকে সহায়তা প্রদান করা হবে। 
 
আজ শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী লালমনিরহাটের হাতিবান্ধা উপজেলার পূর্ণসিন্দুনা গ্রামের শাকিলা আক্তারকে শিক্ষা সহায়তার চেক হস্তান্তরকালে সচিব আফরোজা খান এ কথা বলেন।  
 
শ্রম সচিব শ্রমজীবী মেহনতি মানুষের সন্তানরা যাতে অর্থাভাবে উচ্চশিক্ষা থেকে বঞ্চিত না হয় সেজন্য মন্ত্রণালয়ের অধীন কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তর এবং শ্রম অধিদপ্তরের মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে দেখার নির্দেশ দেন। মন্ত্রণালয়ের অধীন বিভিন্ন অধিদপ্তরের কর্মকর্তাদেরকে তিনি বলেন, তৃণমূল পর্যায়ে শ্রমজীবীদের সন্তানদের শ্রমিক কল্যাণ তহবিলের শিক্ষা সহায়তার বিষয়টি অবহিত করবেন এবং সহায়তা পেতে তাদের সহযোগিতা করবেন।
 
শ্রম সচিব এর আগে মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তাদের অংশগ্রহণে জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল বিষয়ক কর্মশালার উদ্বোধন করেন। অনুষ্ঠানে সচিব কর্মকর্তাদেরকে নৈতিকতা, সততা এবং সদাচারণের বিষয়টি মাথায় রেখে কাজ করার আহ্বান জানান।
 
অনুষ্ঠানে মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সৈয়দ আহম্মদ, মোঃ আশরাফ শামীম এবং বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক ড. এ এম এম আনিসুল আওয়ালসহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।
 
#
 
আকতারুল/মাহমুদ/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৮/১৭৩০ ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩৪৩৭
 
‘জাতীয় উৎপাদনশীলতা বার্তা’র মোড়ক উন্মোচন 
 
ঢাকা, ১৩ পৌষ (২৭ ডিসেম্বর) :
জনগণের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দেয়ার নীতি অনুসরণ করে অর্পিত দায়িত্ব পালনের জন্য শিল্প মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রতি নির্দেশনা দিয়েছেন ভারপ্রাপ্ত শিল্পসচিব মোঃ আবদুল হালিম। একই সাথে তিনি সরকারি দপ্তরে না এসেই জনগণ যাতে সহজে তথ্যসেবা পেতে পারে, সে লক্ষ্যে তথ্যের অবাধ প্রবাহ নিশ্চিত করার পরামর্শ দেন।  
 ন্যাশনাল প্রোডাক্টিভিটি অর্গানাইজেশনের উদ্যোগে আয়োজিত ‘জাতীয় উৎপাদনশীলতা বার্তা’ এর তৃতীয় সংখ্যার মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভারপ্রাপ্ত শিল্পসচিব এ নির্দেশনা দেন। শিল্প মন্ত্রণালয়ে আজ এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। একই অনুষ্ঠানে এনপিও’র ‘বার্ষিক প্রতিবেদন ২০১৭-১৮’ এর মোড়কও উন্মোচন করা হয়।
ভারপ্রাপ্ত শিল্পসচিব বলেন, করদাতা হিসেবে জনগণ সরকারি তথ্য জানার অধিকার রাখেন। এ লক্ষ্যে সরকার ইতিমধ্যে তথ্য অধিকার আইন পাস, তথ্য কমিশন গঠনসহ নানামুখী পদক্ষেপ নিয়েছে। সরকারি তথ্য প্রাপ্তির সুযোগ অবারিত করতেই এসব উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এর ফলে সরকারের কর্মকা- মূল্যায়ন, নতুন কর্মসূচি প্রণয়ন, প্রকল্প গ্রহণ ও বাস্তবায়ন সহজ হচ্ছে। পাশাপাশি বিভিন্ন শিক্ষা ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান এসব তথ্য ব্যবহার করে উন্নয়নের গতিধারা মূল্যায়নে সক্ষম হচ্ছে। বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তিতেও অবাধ তথ্য প্রবাহ নিশ্চিত করার ওপর গুরুত্ব দেয়া হয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।  
বেসরকারিখাত বিকাশে কার্যকর সেবাদান শিল্প মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব। এক্ষেত্রে তথ্য সেবা একটি গুরুত্বপূর্ণ দিক। সেবাগ্রহীতারা কোন ধরণের সেবা কতদিনে পাবেন-সে সম্পর্কে একটি স্পষ্ট ধারণা দেয়া এবং সেবা প্রদানের সময়সীমা নিয়ে সংস্থাভিত্তিক প্রচার চালাতে শিল্প মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন সকল কর্পোরেশন ও সংস্থাকে তাগিদ দেন ভারপ্রাপ্ত শিল্পসচিব। 
উল্লেখ্য, জাতীয় পর্যায়ে উৎপাদনশীলতা বিষয়ক ধারণা প্রসার এবং উৎপাদশীলতা আন্দোলনে সংশ্লিষ্ট অংশীজনদের সম্পৃক্ত করতে ‘জাতীয় উৎপাদনশীলতা বার্তা’ প্রকাশনার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এতে 
সরকারি-বেসরকারি পর্যায়ে উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে গৃহীত বিভিন্ন কার্যক্রম তুলে ধরা হচ্ছে। পাশাপাশি উৎপাদনশীলতা বিষয়ক জাতীয় ও আন্তর্জাতিক গবেষণার ফলাফল এবং নিবন্ধ প্রকাশ করা হচ্ছে। এর ফলে উৎপাদন প্রক্রিয়ার সংশ্লিষ্ট অংশীজনরা উৎপাদনশীলতা উন্নয়নের প্রয়াসে সামিল হচ্ছেন। 
ন্যাশনাল প্রোডাক্টিভিটি অর্গানাইজেশনের (এনপিও) পরিচালক এস এম আশরাফুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে শিল্প মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন বিভিন্ন দপ্তর ও সংস্থার প্রধানরা উপস্থিত ছিলেন। 
 
#
জলিল/অনসূয়া/জসীম/সেলিনা/সুবর্ণা/শামীম/২০১৮/১২৫১ ঘণ্টা
Todays handout (7).docx Todays handout (7).docx

Share with :

Facebook Facebook