তথ্য অধিদফতর (পিআইডি) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১৭ এপ্রিল ২০১৫

তথ্যবিবরণী 17/04/2015

 

তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ১১১১

সরকার সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠীর  উন্নয়নে 
যুগান্তকারী  সামাজিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন করেছে
                        -- মোঃ শাহরিয়ার আলম
রাজশাহী, ৪ বৈশাখ (১৭ এপ্রিল) :
    পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোঃ শাহরিয়ার আলম  বলেছেন, সরকার হতদরিদ্র ও সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠীর  উন্নয়নে যুগান্তকারী  মানবিক ও সামাজিক কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে চলেছে। তিনি বলেন, এশিয়া মহাদেশের মধ্যে বাংলাদেশেই  সর্বপ্রথম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ ধরণের কর্মসূচি বাস্তবায়ন  করেছে। 
    প্রতিমন্ত্রী আজ রাজশাহী সার্কিট হাউসে সমাজকল্যাণ অধিদপ্তরের উদ্যোগে প্রাথমিক, মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক ও উচ্চস্তরের প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের মাঝে  শিক্ষা উপবৃত্তির চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন। অনুষ্ঠানে ১১০ জন প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের মাঝে পাঁচ লাখ ৪৫ হাজার ৭০০ টাকার চেক বিতরণ করা হয়।
    প্রতিমন্ত্রী বলেন, দেশের মোট জনসংখ্যার শতকরা দশ ভাগ সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠী । তিনি এ সকল সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠীকে উন্নয়নের মুল স্রোতধারায় সম্পৃক্ত করার ওপর গুরুত্বারোপ করেন। তিনি বলেন, সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠীর সার্বিক কল্যাণ, উন্নয়ন এবং তাদের স্বাস্থ্য শিক্ষা ইত্যাদি  চ্যালেঞ্জ হিসেবে গ্রহণ করে  সরকার গৃহীত কর্মসূচির সর্বাত্মকভাবে সফল করে তুলতে হবে।  তিনি রাজশাহীতে একটি কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্র স্থাপন করার বিষয়ে সহযোগিতার আশ্বাস দেন। 
    রাজশাহীর জেলা  প্রশাসক মেসবাহ উদ্দীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে সমাজ সেবা অধিদপ্তরের উপপরিচালক মোঃ কামরুজ্জামনসহ সংশ্লি¬ষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
    প্রতিমন্ত্রী রাজশাহী শিল্পকলা একাডেমীতে রাজশাহী বিভাগীয় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর কালচারাল একাডেমীর উদ্যোগ ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর তিনদিনব্যাপী বাহা উৎসব উদ্বোধন করেন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতাকালে তিনি ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি সংরক্ষণ করার ওপর গুরুত্বারোপ করেন। তিনি   ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর জনগণের স্বার্থেই পৃথক ভূমি কমিশন গঠন করা হবে। তাদের নিজস্ব সংস্কৃতির উন্নয়ন ও বিকাশে জেলা পর্যায়ে ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী একাডেমী স্থাপন করা হবে বলেও তিনি উল্লে¬খ করেন। তিনি  একাডেমী চত্বরে স্থাপিত বাহা মেলার বিভিন্ন স্টল ঘুরে দেখেন।
    অনুষ্ঠানে সংসদ সদস্য আখতার জাহান, রাজশাহীর বিভাগীয় কমিশনার হেলালুদ্দিন আহমদ, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী বিভাগীয় কালচারাল একাডেমীর উপপরিচালক এস এম  শামীম আখতার, রাজশাহী কোর্ট কলেজের অধ্যক্ষ শফিকুর রহমান বাদশা এবং  জাতীয় আদিবাসী পরিষদ রাজশাহী জেলার সভাপতি বিমল চন্দ্র রাজোয়াড়  বক্তৃতা করেন। 
পরে প্রতিমন্ত্রী সার্কিট হাউজে জেলা পর্যায়ের সরকারি  কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় করেন। 
#
মিজান/নবী/সেলিম/২০১৫/২২৪০ ঘণ্টা 

তথ্যবিবরণী                                                                                         নম্বর :  ১১১০

মিল্কভিটার ক্ষতি পোষাতে চলমান কর্মপরিকল্পনা
বাস্তবায়নে গাফিলতি বরদাস্ত করা হবে না
                            -- প্রতিমন্ত্রী রাঙ্গা

সিরাজগঞ্জ, ৪ বৈশাখ (১৭ এপ্রিল) :

এলজিআরডি ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী মোঃ মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেছেন, সাম্প্রতিক রাজনৈতিক অস্থিরতায় মিল্কভিটা মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তা থেকে বেরিয়ে আসতে বিশেষ কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। এ কার্যক্রম বাস্তবায়নে কারো কোনো গাফিলতি বরদাস্ত করা হবে না বলে তিনি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন।

    প্রতিমন্ত্রী আজ সিরাজগঞ্জ জেলায় বাংলাদেশ দুগ্ধ উৎপাদনকারী সমবায় ইউনিয়ন “মিল্কভিটা” এর বাঘাবাড়ি দুগ্ধ কারখানা ও লাহিরী মোহনপুর  দুগ্ধ শীতলীকরণ কেন্দ্রের কার্যক্রম পরিদর্শনশেষে এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে মিল্কভিটার চেয়ারম্যান শেখ নাদের হোসেন লিপু, সদস্য ড. সাজ্জাদ হায়দার, সামসুল আরেফীন, শেখ আব্দুল হামিদ লাভলু এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃ জহির উদ্দিন বাবর উপস্থিত ছিলেন।

    প্রতিমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দারিদ্র্যবিমোচন, কর্মসংস্থান সৃষ্টি ও অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ত্বরান্বিতকরণে দুগ্ধউৎপাদন বৃদ্ধির মাধ্যমে দেশকে দুগ্ধ ও দুগ্ধজাতপণ্যে স¦য়ংসম্পূর্ণ করার উদ্যোগ গ্রহণ করেন। কিন্তু ১৫ আগস্ট জাতির পিতাকে সপরিবারে হত্যার পর এ কার্যক্রম স্থবির হয়ে পড়ে। পরবর্তীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঐকান্তিক আগ্রহে মিল্কভিটার কার্যক্রম বিকশিত হয়। তিনি বলেন, মিল্কভিটার মাধ্যমে গ্রামের পণ্য আসছে শহরে। শহরের অর্থ যাচ্ছে গ্রামে। ফলে গড়ে উঠেছে দারিদ্র্যবিমোচনের মাধ্যমে আর্থসামাজিক সেতুবন্ধন। তিনি এ সেতুবন্ধনকে ধরে রাখতে মিল্কভিটার কর্মকর্তা কর্মচারী ও দুগ্ধ সমবায়ীসহ সকলকে আরো সততা, নিষ্ঠা ও আন্তরিকার সাথে স্ব স্ব দায়িত্বপালনের পরামর্শ দেন।  

#

আহসান/মিজান/নবী/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৫/২০৫০ ঘণ্টা

 

তথ্যবিবরণী                                                                                         নম্বর : ১১০৯

প্রতি ঘরে বিদ্যুৎ সুবিধা পৌঁছে দিতে সরকার কাজ করছে
                                                     -- মৎস্য প্রতিমন্ত্রী

ডুমুরিয়া (খুলনা), ৪ বৈশাখ (এপ্রিল ১৭) :

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দ বলেছেন, উন্নয়নের পূর্বশত বিদ্যুৎ। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে বর্তমান সরকার প্রতি ঘরে বিদ্যুৎসুবিধা পৌঁছে দিতে নিরলস কাজ করে যাচ্ছে।
    
প্রতিমন্ত্রী আজ খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার বাদুরগাছা গ্রামে নতুন বিদ্যুৎলাইনের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন। শোভনা ইউনিয়নের বাদুরগাছা গ্রামে বিদ্যুৎলাইন সংযোগে ৮ লাখ ৮৮ হাজার টাকা ব্যয়  হয়েছে।  অনুষ্ঠানে ৩২ জন নতুন গ্রাহককে বিদ্যুৎসংযোগ প্রদান করা হয়।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের আমলেই দেশে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। সরকারের দৃঢ় পদক্ষেপের ফলে বর্তমানে এ অঞ্চলের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সন্তোষজনক। গ্রামের মানুষের অর্থনৈতিক উন্নয়ন হয়েছে এবং তারা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রেখে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে বসবাস করছে।  তিনি নতুন গ্রাহকদের প্রতি বিদ্যুতের অপচয় না করার পরামর্শ দেন। প্রতিমন্ত্রী এ এলাকায় যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে এবং বাদুরগাছা শ্মশান ও মঠ মন্দিরের সংস্কারকাজে সহযোগিতার আশ্বাস দেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে খুলনা পল্লিবিদ্যুৎ সমিতি বোর্ডের সহসভাপতি মোঃ আবুল কালাম মহিউদ্দীন এবং খুলনা পল্লিবিদ্যুৎ সমিতির ডিজিএম (টেকনিক্যাল) প্রকৌশলী মনোহর বিশ্বাস উপস্থিত ছিলেন।

পরে প্রতিমন্ত্রী  চুকনগর ডিগ্রি কলেজে ধ্রুব সংস্থার আয়োজনে ‘দলিত সম্প্রদায়ের ছাত্রীদের ক্যারিয়ার গঠনে শিক্ষার ভূমিকা’ শীর্ষক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠানে যোগ  দেন।

প্রতিমন্ত্রী ডুমুরিয়া উপজেলায় ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালিতেও নেতৃত্ব দেন।
#

মিজান/মিজান/নবী/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৫/২০০০ ঘণ্টা

 

তথ্যববিরণী                                                                                         নম্বর :  ১১০৮

২০১৩ সালরে ডগ্রিি পাস ও র্সাটফিকিটে র্কোস পরীক্ষা আগামীকাল

ঢাকা, ৪ বশৈাখ (১৭ এপ্রলি) :

    জাতীয় বশ্বিবদ্যিালয়রে ২০১৩ সালরে ডগ্রিি পাস ও র্সাটফিকিটে র্কোস পরীক্ষা আগামীকাল দুপুর  ২টায় শুরু হব।ে সারাদশেরে ১ হাজার ৬ শ’ ৮৩ টি কলজেরে ৬৮৩টি কন্দ্রেে ৫ লাখ ৩২ হাজার ১১৭ জন পরীর্ক্ষাথী এ পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করব।ে

    পরীক্ষা অনুষ্ঠানরে লক্ষ্যে যাবতীয় প্রস্তুতি ইতোমধ্যে সম্পন্ন হয়ছে।ে জাতীয় বশ্বিবদ্যিালয় র্কতৃপক্ষ সুষ্ঠুভাবে পরীক্ষা অনুষ্ঠানে প্রশাসন, সংশ্লষ্টি কলজে, শক্ষিক, শক্ষর্িাথী এবং অভভিাবকগণরে সহযোগতিা কামনা করছে।ে

#

ফয়জুল/মজিান/নবী/সঞ্জীব/সলেমি/২০১৫/১৮৪০ ঘণ্টা

 

Handout                                                                                                       Number :  1107

A H Mahmood Ali meets Dutch Foreign Minister

The Hague (The Netherlands), April 17 :

            “Bangladesh peacekeepers are serving in extremely difficult situations in an outstanding manner and the Netherlands would like to explore the possibility of deepening our bilateral cooperation in UN peacekeeping operations”, said Foreign Minister of the Netherlands Bert Koenders during a bilateral meeting with the Bangladesh Foreign Minister Abul Hassan Mahmood Ali, on the sidelines of the Global Conference on Cyber Space (GCCS) 2015 in the Hague today.

            The Dutch Foreign Minister thanked Bangladesh for joining the Global Forum on Cyber Expertise (GFCE) launched during GCCS 2015 as a platform for promoting international cooperation on cyber security. He also expressed keen interest in working together with Bangladesh on climate change adaptation and mitigation issues.

            The Bangladesh Foreign Minister assured of taking forward the joint Bangladesh–Netherlands partnership on the “Internet Infrastructure and Maintenance Initiative” under the GFCE framework.

            The two Foreign Ministers expressed satisfaction at the existing momentum of bilateral relations and agreed on the convening of Foreign Office Consultations between the two countries. Foreign Minister Ali invited the Netherlands to enhance their engagement in some of thrust sectors like pharmaceuticals, shipbuilding and ICT in Bangladesh. The Dutch Minister assured of positively considering the issues of increasing the number of scholarships and possible visa waiver for certain categories of people from Bangladesh.

            The Netherlands Foreign Minister appreciated Bangladesh’s efforts in combating terrorism and violent extremism and containing recruitment of potential foreign terrorist fighters. He also welcomed the announcement for the upcoming City Corporation Elections in Bangladesh.

            The Bangladesh Foreign Minister extended invitation to the Dutch Prime Minister and Foreign Minister to visit Bangladesh at their earliest convenience. Minister Koenders assured of discussing the matter with the Netherlands Prime Minister.

            The Bangladesh Foreign Minister also had a bilateral meeting with Deputy National Security Advisor of India Dr. Arvind Gupta. Dr. Gupta appreciated various measures being taken under the “Digital Bangladesh” initiative, as highlighted by the Bangladesh Foreign Minister at GCCS 2015. Foreign Minister Ali exchanged views with the Indian side about building further bilateral cooperation in cyber security, including at the operational level. The two sides suggested addressing cyber security issues under the framework of regular Security Dialogues between the two countries.

#

Khaleda/Mizan/Sanjib/Selim/2015/1750 Hrs

Handout                                                                                                                                                                                          Number : 1104

Foreign Minister Meets Serbian Foreign Minister and

Heads of OPCW and INTERPOL

 

The Hague (The Netherlands), 17 April : 

            "Bangladesh and the former Yugoslavia enjoyed excellent bilateral relations as the latter played a formative role in securing international recognition for the independent Bangladesh during and after 1971. Those historic ties need to be revived to forge mutually beneficial relations between Bangladesh and Serbia, with particular focus on economic cooperation and people-to-people contacts," observed Foreign Minister of Bangladesh Abul Hassan Mahmood Ali at a bilateral meeting with First Deputy Prime Minister and Foreign Minister of Serbia Ivica Dacic on the sidelines of the Global Conference on Cyber Space (GCCS)  in the Hague  today.   

            The two Foreign Ministers reminisced about the close personal rapport between the Father of the Nation Bangabandhu Sheikh Mujibur Rahman and the former Yugoslav leader Josip Broz Tito.

            The Ministers also agreed to resume exchange of high level visits to explore new areas of cooperation between the two countries. Minister Ali invited his Serbian counterpart to visit Bangladesh at a mutually convenient time. The Serbian Foreign Minister accepted the invitation.

            The Serbian Minister suggested considering enhanced cooperation in the education sector and possible visa waiver arrangements between the two countries.

            The two Ministers further discussed the ongoing efforts to normalize relations between Serbia and Kosovo under a European Union sponsored initiative.

            The Bangladesh Foreign Minister also had a meeting with Director General of Organisation for the Prohibition of Chemical Weapons (OPCW) Ahmet Uzumcu at the latter’s office in the Hague. Among other exhibits, the Foreign Minister visited the Nobel Peace Prize awarded to OPCW in 2013.  

            The OPCW Director General briefed the Foreign Minister about the background of the Chemical Weapons Convention (CWC) and the current status with the universalization of the instrument.

            Foreign Minister Ali appreciated the capacity building support provided by OPCW to Bangladesh. He invited the Director General to visit Dhaka during the Asian Chemical Congress to be held later this year. The Minister also assured of possible cooperation with CWC’s universalization efforts.

            The Foreign Minister met with President, of INTERPOL Mirreille Ballestrazzi also on the sidelines of GCCS. They discussed possible capacity building support by INTERPOL for Bangladesh’s law enforcement agencies to combat cyber crimes, including through the INTERPOL Global Complex for Innovation, located in Singapore.

            The INTERPOL President also assured of continuing with need-based training support for Bangladesh Police.

#

Shudana/Mizan/Sanjib/Abbas/2015/1738 Hours

তথ্যবিবরণী                                                                                                                             নম্বর :   ১১০৬

নেপালের সাবেক প্রধানমন্ত্রীর মৃত্যুতে স্পিকারের শোক

ঢাকা, ৪ বৈশাখ (১৭ এপ্রিল) :
    নেপালের সাবেক প্রধানমন্ত্রী সূর্য বাহাদুর থাপার মৃত্যুতে জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।
    স্পিকার আজ এক শোকবার্তায় বলেন, সূর্য বাহাদুর থাপা ছিলেন বাংলাদেশের অকৃত্রিম বন্ধু। তাঁর মৃত্যুতে বাংলাদেশ একজন পরীক্ষিত বন্ধুকে হারালো।
    স্পিকার প্রয়াতের আত্মার শান্তি কামনা ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
ডেপুটি স্পিকারের শোক
    নেপালের সাবেক প্রধানমন্ত্রী সূর্য বাহাদুর থাপার মৃত্যুতে জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার
মোঃ ফজলে রাব্বী মিয়া গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।
    এক শোকবার্তায় তিনি বলেন, সূর্য বাহাদুর থাপা ছিলেন দক্ষিণ এশিয়ার একজন গণতান্ত্রিক নেতা। তাঁর মৃত্যুতে বাংলাদেশ একজন প্রকৃত বন্ধুকে হারালো।
    ডেপুটি স্পিকার প্রয়াতের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
চিফ হুইপের শোক
    নেপালের সাবেক প্রধানমন্ত্রী সূর্য বাহাদুর থাপার মৃত্যুতে জাতীয় সংসদের চিফ হুইপ আ স ম ফিরোজ গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।
    এক শোকবার্তায় চিফ হুইপ বলেন, সূর্য বাহাদুর থাপার মৃত্যু বাংলাদেশের একজন অকৃত্রিম বন্ধুর মৃত্যু। এ ক্ষতি  কখনোই পূরণ হবার নয়।
    চিফ হুইপ প্রয়াতের আত্মার শান্তি কামনা ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
#
হুদা/মিজান/নবী/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৫/১৭৩০ ঘণ্টা

 

তথ্যবিবরণী                                                                                                                                                      নম্বর :  ১১০৫

ইসলামাবাদে মুজিবনগর দিবস পালিত

ইসলামাবাদ (পাকিস্তান), এপ্রিল ১৭ :

    যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে আজ পাকিস্তানের ইসলামাবাদে বাংলাদেশ হাইকমিশনে ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস পালিত হয়েছে।

চ্যান্সারিভবনে এ উপলক্ষে এক আলোচনাসভার আয়োজন করা হয়। পাকিস্তানে বাংলাদেশের হাইকমিশনার সোহরাব হোসেন এতে সভাপতিত্ব করেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে মুজিবনগর দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর দেয়া বাণী পাঠ করে শোনানো হয়।

আলোচনাসভায় বক্তারা মুজিবনগর সরকারের ঐতিহাসিক তাৎপর্য ব্যাখ্যা করেন। হাইকমিশনার জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি গভীর কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করে স্বাধীনতার প্রকৃত ইতিহাস ও ঐতিহাসিক মুজিবনগরের প্রেক্ষাপট নতুন প্রজন্মের সামনে তুলে ধরার ওপর বিশেষ গুরুত্ব দেন। তিনি দেশের সামগ্রিক অগ্রগতি ও উন্নয়নের বিভিন্ন দিক উল্লেখ করে বলেন, বিশ্বের অনেক দেশ এখন বাংলাদেশকে উন্নয়নের মডেল হিসেবে চিহ্নিত করছে। তিনি জাতির পিতার স্বপ্নের সোনারবাংলা গড়ার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অব্যাহত প্রয়াসে সকল বাংলাদেশিকে নিজ নিজ অবস্থান থেকে যথাযথ অবদান রাখার আহ্বান জানান।

মিশনের সকল কর্মকর্তা কর্মচারী অনুষ্ঠানে যোগ দেন।

#

ইকবাল/মিজান/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৫/১৭০০ ঘণ্টা

 

Todays handout (8).doc Todays handout (8).doc

Share with :

Facebook Facebook